" " " "

মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম – মসজিদের স্পিকারের দাম ২০২৩

আসসালামু আলাইকুম, যদি আপনি এই মসজিদের স্পিকারের দাম বা মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চান তাহলে আজকের পোস্ট শেষ পর্যন্ত পরবেন। মসজিদের স্পিকারের দাম সহ মসজিদের সাউন্ড বক্সের দাম কত সেগুলো আজকে বিস্তারিত আলোচনা করা হবে।

ইদানিং প্রায় প্রতিটা গ্রামে গ্রামে মসজিদ গড়ে উঠেছে। আর এই মসজিদগুলোতে এখন প্রচুর পরিমাণে মানুষ যায় নামাজ আদায় করতে । কিন্তু মসজিদগুলো অনেক বড় বড় হওয়ায় সেগুলোতে যখন ইমাম সাহেব খালি মুখে কোন বক্তব্য দিতে চায় তখন মুসল্লিরা সেগুলো শুনতে পারে না ঠিকমতো।

ইমাম সাহেব বক্তব্য দিলে যদি মুসল্লীরা সেই বক্তব্য শুনতে না পায় তাহলে সেই বক্তব্যের আর কোন দাম থাকে না। তো এই কারণে অবশ্যই মসজিদে ভালো মানের সাউন্ড সিস্টেম লাগানো দরকার । আজকের পোস্ট পড়ে আপনি মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম কোন গুলো ভালো সেটা খুব ভালো ভাবে জানতে পারবেন।

মসজিদের সাউন্ড বক্সের দাম কত

আপনারা হয়তো ইতিমধ্যে মসজিদে অনেক ধরনের সাউন্ড বক্স কিনেছিলেন কিংবা কেনেননি। যেটাই হোক না কেন আপনি যদি নতুন সাউন্ড বক্স কিনতে চান তাহলে অবশ্যই এই মসজিদের সাউন্ড বক্সের দাম কত সেটা ভালো মতো জেনে নিতে হবে।

অনেক সময় দেখা যায় আমরা সাউন্ড বক্স কিনতে গিয়ে না চেনার কারণে বা মসজিদের স্পিকারের দাম না জানার কারণে খারাপ সাউন্ড বক্স নিয়ে আসি এবং সেটা বেশিদিন ধরে চালাতে পারে না।

যদি আপনি সঠিক দাম দিয়ে সঠিক পণ্য টি ক্রয় করতে না পারেন তাহলে এখানে আপনার অনেক বড় লস হওয়ার সম্ভাবনা আছে। এই কারণে আপনাদেরকে আগে এই মসজিদের সাউন্ড বক্সের দাম কত করে সেটা সম্পর্কে ভালো আইডিয়া নিতে।

সাধারণত ২০০০ টাকা থেকে চার হাজার টাকার মধ্যে মসজিদের সাউন্ড সিস্টেমগুলো ভালো ভালো পাওয়া যায়।

বাজারে অনেক ধরনের মসজিদে ব্যবহারের জন্য সাউন্ড সিস্টেম আছে কিন্তু সেগুলো সবগুলো ভালো নয়। এই কারণে তাড়াতাড়ি গিয়ে কোন সাউন্ড বক্স না কিনে অবশ্যই আমাদের পোস্টে দেখানো নির্দেশনা গুলো ভালোমতো পড়বেন এবং আমরা যে সাউন্ড বক্সগুলো আপনাকে কিনতে বলবো সেগুলো কেনার চেষ্টা করবেন।

আমাদের পোস্টে আমরা সেই সকল মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম গুলো এবং মসজিদের স্পিকারের দাম উল্লেখ করব যেগুলো কম দামের মধ্যে ভাল সার্ভিস প্রদান করে থাকে।

যে স্পিকারটি আপনাদেরকে শেয়ার করা হবে সেটার দাম এবং সেটির সুবিধা ও অসুবিধা ও বিস্তারিত ওই পয়েন্টে তুলে ধরা থাকবে। তাই যে স্পিকারটি কিনবেন অবশ্যই আমাদের পোস্ট থেকে সেই স্পিকার সম্পর্কে সুবিধা অসুবিধা এবং বিস্তারিত বিষয়গুলো ভালোমতো পরে নিবেন।

মসজিদের স্পিকারের দাম ও বিস্তারিত

এখানে আমরা বেশ কয়েকটি মসজিদের স্পিকারের দাম এবং বিস্তারিত সহ তুলে ধরব। আপনার মসজিদ যত বড় সেই অনুযায়ী আপনি বেশি দামের সাউন্ড বক্সগুলো কিনবেন।

যদি আপনার মসজিদ ছোট হয়ে থাকে তাহলে ছোট সাউন্ড বক্স কম দামে কিনলে হয়ে যাবে। আর যদি মসজিদ টি বড় হয় তাহলে অবশ্যই একটি ভালো মানের বড় সাউন্ড বক্স কিনতে হবে।

তো আজকের পোস্টে ছোট এবং বড় এছাড়াও কম দামের এবং বেশি দামের সাউন্ড বক্সগুলো সবগুলো উল্লেখ করা হবে। তাহলে চলুন কথা না বাড়ি শুরু করা যাক –

1. Ahuja SCM-15XT 10-Watt PA Column Speaker

মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম - মসজিদের স্পিকারের দাম ২০২৩

প্রথমেই আমরা যে মসজিদের সাউন্ড বক্সটি তুলে ধরব এটি অনেক জনপ্রিয় এবং কম দামে বেশ ভালো সার্ভিস প্রদান করে থাকে। এটি যেহেতু কলাম স্পিকার তাই যে কোন মসজিদের দেয়ালে সুন্দরভাবে লাগিয়ে রাখা যাবে।

এছাড়া যদি আপনাদের মসজিদ টিন সেট হয়ে থাকে তাহলেও এটি সুন্দরভাবে ব্যবহার করতে পারবেন কারণ এটিতে ধুলাবালি রোধ করার জন্য বিশেষ ব্যবস্থা রাখা আছে। তারপরও নিচে এই স্পিকারটি সম্পর্কে কিছু তথ্য তুলে ধরা হলো –

  • স্পিকারটি যেহেতু দশ ওয়াট আউটপুট দিতে সক্ষম তাই এটার সাউন্ড কোয়ালিটি বেশ ভালো এবং অনেক দূর পর্যন্ত যেতে সক্ষম।
  • এই সাউন্ড সিস্টেমটিতে সাধারণত ১০০ ভোল্ট কানেকশন প্রদান করতে হয়।
  • স্পিকারটি ভারতে বানানো হয়েছে।
  • এই ভালো স্পিকার এর ওজন হচ্ছে ৩.৫ কেজি।

তো আশা করি আপনারা এই মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম সম্পর্কে বেশ কিছু তথ্য জেনে গেছেন। যাদের মসজিদ মোটামুটি বড় আছে তারাও চাইলে এই স্পিকারটি ক্রয় করে নিতে পারেন। স্পিকার টি বেশ ভালো কোয়ালিটির সাউন্ড প্রদান করতে সক্ষম।

তো বন্ধুরা ওঝা কোম্পানির এই কলাম স্পিকারটির দাম ২৮৫০ টাকা রাখা হয়েছে। যদি আপনারা অনলাইন থেকে অর্ডার করতে চান তাহলেও পাবেন। আবার চাইলে যে কোন দোকানে গিয়ে বললেও পাবেন।

২. TOA BS-677B Cabinet Speaker

যারা মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম ব্যবহারের জন্য ক্যাবিনেট স্পিকার গুলো খুঁজতেছেন তাদের জন্য এটি পারফেক্ট হতে পারে। এই স্পিকারটি কেবিনেট হওয়ায় আপনারা যে কোন স্থানে বসিয়ে এটি ব্যবহার করতে পারবেন।

মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম - মসজিদের স্পিকারের দাম ২০২৩

শুধু বসিয়ে নয় আপনারা চাইলে স্পিকারটিকে মসজিদের দেওয়ালে কিংবা যে কোন স্থানে আটকিয়েও ব্যবহার করতে পারবেন। যে সকল মসজিদ খুব বেশি বড় নয় আবার খুব ছোট নয় সেগুলোতেই এই স্পিকারটি বেশ ভালো সাউন্ড প্রদান করতে সক্ষম।

যাই হোক স্পিকারটির কিছু তথ্য জেনে নেই –

  • এই ক্যাবিনেট সাউন্ড বক্স এর ওজন অনেক কম মাত্র ১.৪ কেজি ওজনের।
  • স্পিকারটি কিনলে আপনারা কোম্পানি থেকে এক বছরের সার্ভিস ওয়ারেন্টি পাবেন। অর্থাৎ কোন সময় নষ্ট হলে সেটা রিপেয়ার করে নিয়ে আসতে পারবেন।
  • এই সাউন্ড বক্স টি সাদা এবং কালো দুই রঙেরই পাওয়া যাবে।
  • সাধারণত স্পিকারটির গায়ে লেখা আছে যে এটি ৬ ওয়াট আউটপুট দিতে সক্ষম।
  • এই সাউন্ড বক্সটির সাউন্ড প্রেসার হচ্ছে 330 ~ 3,300Hz, 91dB / W

বন্ধুরা এই স্পিকারটির ডিজাইন অনেক ভালো জেকেও এটি পছন্দ করতে বাধ্য। তো আপনারা চাইলে চমৎকার এই স্পিকারটি যেকোনো অনলাইন শপিং থেকে বা বিভিন্ন ইলেকট্রনিক্স এর দোকান থেকে কিনে নিতে পারবেন।

এই স্পিকারটির দাম অনলাইনে সাধারণত 3200 টাকার আশেপাশে রাখা হয়। তবে যদি আপনি স্থানীয় কোন শোরুম থেকে নিতে চান তাহলে এই দামটির কম অথবা বেশি হতে পারে।

৩. Ahuja 15T PA 10W Column Speaker

এই মসজিদের স্পিকারের দাম পোস্টারে তিন নম্বরে আমরা আবার উউঝা কোম্পানির আরেকটি কলাম স্পিকার রেখেছি। যাদের মসজিদ আর একটু বড় রয়েছে এবং মসজিদে বেশ ভালো কোয়ালিটির সাউন্ড পেতে চান তাদের জন্য এই স্পিকারটি পারফেক্ট হতে পারে।

এক নম্বরে যে কলাম স্পিকারটি আপনাদেরকে সাজেস্ট করেছিলাম তার থেকে এটির কোয়ালিটি বেশ ভালো রয়েছে তবে দামটাও একটু বেশি। এই স্পিকার গুলো লম্বা হওয়ায় এদের বিলট কোয়ালিটি বেশ চমৎকার।

এই চমৎকার মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম গুলো দেয়ালে লাগিয়ে রাখলে মসজিদ অনেক ভালো দেখা যায় এবং বেশ ভালো সাউন্ড কোয়ালিটি প্রভাইড করতে পারে। স্পিকারটি সম্পর্কে কিছু তথ্য জেনে নেওয়া যাক –

  • অওঝা কোম্পানির কলাম স্পিকারটি দশ ওয়াট আউটপুট দিতে সক্ষম তবে আগেরটা থেকে বেশি সাউন্ড পাবেন।
  • এই মডেলের স্পিকার গুলোর মধ্যে দুইটি মাইক থাকে তাই এদের সাউন্ড অনেক বেশি হয়।
  • কলাম স্পিকারটির ওজন মাত্র সাড়ে ৩ কেজি।
  • স্পিকার টির বিল্ট কোয়ালিটি অনেক সুন্দর এবং দেখতে চমৎকার।
  • এই স্পিকার গুলো সাধারণত কালো রংয়ের হয়ে থাকে।

তো বন্ধুরা আপনাদের মসজিদ যদি আরেকটু বড় হয়ে থাকে তাহলে এই স্পিকারটা আপনাদের জন্য পারফেক্ট। অওঝা কোম্পানির এই 10 ওয়াট আউটপুটের স্পিকারটি আপনারা অনলাইনে ৩৫০০ টাকার মধ্যে পেয়ে যাবেন।

4. AHUJA CS-663T 6W/100V PA CEILING SPEAKER

আমরা আবার ও ওউঝা কোম্পানির আরেকটি ভালো মসজিদে লাগানোর জন্য স্পিকার আপনাদের সামনে নিয়ে এসেছি। তবে এই স্পিকারটি একটু আলাদা। এই স্পিকার সাধারণত সিলিং এ লাগানোর জন্য ব্যবহার হয়।

মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম - মসজিদের স্পিকারের দাম ২০২৩

তবে যাদের কম দামের মধ্যে ভালো স্পিকার দরকার তাদের জন্য এটি একদম পারফেক্ট। এই সাউন্ড বক্সটির দাম কম হওয়ার পাশাপাশি এটি দেখতে বেশ চমৎকার। যখন আপনি সিলিং এ এটি লাগাবেন তখন মসজিদের সৌন্দর্য আরো কয়েকগুণ বৃদ্ধি পাবে।

এটি লাগানোর জন্য অবশ্যই আপনার মসজিদ বিল্ডিং হতে হবে এবং ওপরের সিলিং ঢালাই করা থাকতে হবে।

তাহলে এটি অনেক ভালো ভাবে মানাবে। চলুন কিছু গুরুত্বপূর্ণ  ইনফো জেনে নেই এই মাইক এর ব্যাপারে –

  • স্পিকার টির মডেল হলো Ahuja CS-663T.
  • যেকোনো শপ থেকে কিনলে আপনারা এটির কোম্পানি থেকে এক বছরে সার্ভিস ওয়ারেন্টি পেয়ে যাবেন।
  • মসজিদের ভেতরে ব্যবহার করার জন্য এই স্পিকারটি এবং এটির আউটপুট ক্ষমতার ৬ ওয়াট।
  • তবে এটির ইনপুট ভোল্টেজ হচ্ছে ২০০ ভোল্টেজ অর্থাৎ কারেন্ট দিয়ে চালানো যাবে।
  • যেহেতু এটি সিলিং এ লাগানো থাকবে তাই এর ওজন অনেক কম মাত্র ৮৫০ গ্রাম ওজন।
  • তবে হ্যাঁ এই স্পিকার এর ফ্রিকোয়েন্সি রেসপন্স ৬০ হার্জ থেকে ১৫ হাজারে হার্টজ পর্যন্ত রয়েছে।

আশা করব স্পিকারটি সম্পর্কে আপনারা অনেক কিছু তথ্য জেনে গেছেন। এটি আপনারা সাদা রং এর পেয়ে যাবেন এবং মাঝখানে সোনালী রঙ্গের কিছু নকশা করা থাকে।

যেহেতু এটির আউটপুট ক্ষমতা 6 ওয়াট তাই এটির সাউন্ড অনেক বেশি হবে না। তবে হ্যাঁ যদি আপনার মসজিদে অনেক বড় না হয় তাহলে খুব ভালোভাবেই এটি আপনার মসজিদে সাউন্ড প্রদান করতে পারবে।

এই স্পিকার এর যেহেতু ডিজাইন অনেক সুন্দর তাই মসজিদ বড় হলে আপনারা একের অধিক বক্স কিনে সিলিংয়ে লাগিয়ে ব্যবহার করতে পারেন।

তো বন্ধুরা এই চমৎকার দেখতে মজবুত মসজিদের সাউন্ড সিস্টেমটি আপনারা পেয়ে যাবেন ১৮০০ টাকা থেকে ২০০০ টাকার মধ্যে। যদি মসজিদে সাউন্ড বক্সের ক্ষেত্রে আপনাদের বাজেট এরকম হয়ে থাকে তাহলে চাইলে এটি নিতে পারেন।

5. Ahuja ASC-40T PA Column Speaker

যে সকল মসজিদ অনেক বড় এবং অনেক বেশি মানুষের সমাবেশ হয়ে থাকে তাদের জন্য এখন আমরা এই সাউন্ড বক্স নিয়ে এসেছি। যেহেতু এই সাউন্ড বক্স টি অনেক বড় মসজিদের জন্য তাই এটার দাম ও একটু বেশি পড়বে ।

মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম - মসজিদের স্পিকারের দাম ২০২৩

এটি কলাম স্পিকার হওয়া সত্ত্বেও আপনারা যে কোন স্থানে বসিয়েও এটি ব্যবহার করতে পারবেন। আর চাইলে তো দেওয়ালের যে কোন স্থাননেই লাগাতে পারবেন। তাহলে চলুন Ahuja ASC-40T স্পিকারটি সম্পর্কে কিছু গুরুত্বপূর্ণ ইনফরমেশন জেনে নেই –

  • চমৎকার স্পিকারটির মডেল নাম্বার হচ্ছে Ahuja ASC-40T
  • এটি ৩০ ওয়াট RMS সাউন্ড আউটপুট দিতে সক্ষম।
  • আর এই সাউন্ড বক্সে ম্যাক্সিমাম ৪৫ ওয়াট এবং ২০০ ভোল্ট ইনপুট দেওয়া যাবে।
  • সাউন্ড বক্স টি যেহেতু বেশ বড় রয়েছে তাই এর ওজন ৫.১০ কেজি।
  • একটি সাউন্ড বক্সের ভিতর মোট চারটি মাইক থাকবে তাই এর সাউন্ড অনেক বেশি হবে।
  • এর ফ্রিকুয়েন্সি ১৫০ হার্জ থেকে ১০ হাজার হার্জ পর্যন্ত।
  • এটির গায়ের রং কালো এবং এক বছর এর সার্ভিস ওয়ারেন্টি পেয়ে যাবেন।

তো বন্ধুরা এটির সাউন্ড কিন্তু অনেক বেশি হবে , তাই যদি আপনাদের মসজিদ অনেক বড় হয়ে থাকে তাহলেই কেবল এটি নিবেন। আর হ্যাঁ যেহেতু এর সাউন্ড কোয়ালিটি ভালো তাই একটু বেশি বিদ্যুৎ খাবে । আশা করব স্পিকারটা সম্পর্কে আপনারা এই তথ্যগুলো জেনে উপকৃত হয়েছেন।

তো এখন চলুন চমৎকার এই মসজিদের স্পিকারের দাম সম্পর্কে আপনারা জেনে নেই। এই স্পিকারের ইনফরমেশন গুলো যেহেতু আমরা ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহ করেছি তাই ইন্টারনেট অনুযায়ী এর দাম ৮০০০ টাকার আশেপাশে। স্থানীয় দোকান থেকে কিনতে গেলে এই দাম কিছুটা কম বেশি হতে পারে।

যেহেতু এর দাম অনেক বেশি তাই এটি বড় মসজিদের জন্য বানানো হয়েছে। যদি আপনাদের মসজিদ খুব বেশি বড় না হয় তাহলে এটি না কিনে ওপরে পয়েন্টে উল্লেখিত কম দামের মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম গুলো দেখতে পারেন।

পরিশেষে

আজকের পোস্টে আমার মোট পাঁচটি মসজিদের স্পিকারের দাম এবং এই মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম সম্পর্কে বিস্তারিত বলেছি। আপনারা যে সাউন্ড বক্স টি কিনেন না কেন অবশ্যই সেটা সম্পর্কে আগে ভালো মতো জেনে তারপর কিনবেন।

এখানে আমরা সেই সকল সাউন্ড বক্স গুলো সপত্রকে জানানোর চেষ্টা করেছি যেগুলোর দাম কিছুটা কম কিন্তু মানে বেশ ভালো। আর এগুলো বেশ ভালো কোম্পানির তাই আপনারা নিশ্চিন্তে এগুলো ক্রয় করে ব্যবহার করতে পারেন।

আর হ্যাঁ সাউন্ড বক্স কেনার সময় অবশ্যই সেটার মডেল দেখে কিনবেন এবং সেটি অরিজিনাল নাকি নকল সেটা ভালো মতো যাচাই করে এটি কিনে নিয়ে আসবেন।

আশা করি যাদের মনে এই মসজিদের সাউন্ড বক্সের দাম কত প্রশ্ন টি ছিল তাদের মন থেকে প্রশ্নটি একদম পরিপূর্ণভাবে দূর হয়ে গেছে। আজকের শেয়ার করা মসজিদের সাউন্ড সিস্টেম গুলোর মধ্যে আপনারা কোনটা কিনেছেন বা কোনটা বেশি ভালো লেগেছে সেটা অবশ্যই কমেন্ট করে জানান।

আর যদি অন্য কোন মসজিদের স্পিকারের দাম সম্পর্কে জানতে চান তাহলে সেটা কমেন্ট করে জানাবেন আর অবশ্যই পোস্ট শেয়ার করে এই বিষয়গুলো অন্যদেরকেও জানার সুযোগ করে দেন।

ভালো লাগতে পারে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button